October 7, 2022

আইপিএলে তো ছুটি নাও না, দেশের হয়ে খেলতে কেন বিশ্রাম?

ফ্রাঞ্চাইজি ক্রিকেট মানেই মোটা অঙ্কের অর্থের হাতছানি! শর্টকাট ক্রিকেট। কোন একটা দলে নাম লেখাতে পারলেই যেন কোটিপতি! অন্তত ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) গল্পটা এমনই। এই আয়োজনে খেলতে গিয়ে অনেকে আবার জাতীয় দলকেও অবজ্ঞা করেন। কারণ দেশের হয়ে খেললে তো এতো অর্থ পাওয়া যায় না! দেশের হয়ে ম্যাচ মিস হলেও আইপিএল মিস করতে রাজি নন তারা। এমন অভিযোগ সাকিব আল হাসান থেকে শুরু করে বিরাট কোহলি অনেকের বিরুদ্ধেই আছে!

Thank you for reading this p

ost, don't forget to subscribe!

 

 

 

এমন ব্যাপারটাতে ঢের ক্ষেপেছেন সুনীল গাভাস্কার। কোহলি, রোহিত শর্মারা আইপিএলের সময় বিশ্রাম নেন না। তা হলে ভারতের জার্সিতে খেলার সময় কেন বিশ্রাম নেন? -এমন প্রশ্ন ছুঁড়েছেন গাভাস্কার।

অবশ্য কোহলি ফর্মে নেই অনেক দিন। শতরানই তো পাচ্ছেন না প্রায় তিন বছর। ইংল্যান্ডের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি সিরিজের প্রথম ম্যাচে বিশ্রাম নিয়েছিলেন তিনি। বলা হচ্ছে, ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিরুদ্ধে সিরিজে খেলবেন না বলে বোর্ডের কাছে ছুটি চেয়েছেন। আবার বোর্ডও নাকি কোহলি, রোহিত শর্মা, জসপ্রীত বুমরাহ, হার্দিক পান্ডিয়ার মতো ক্রিকেটারদের ওয়েস্ট ইন্ডিজ সফরে বিশ্রাম দিতে পারে বোর্ড। এখানেই সুনীল গাভাস্কারের।

ভারতের প্রাক্তন এই অধিনায়ক, বিশ্লেষক বলছিলেন, ‘আইপিএলে তো ছুটি নাও না, দেশের হয়ে খেলতে কেন বিশ্রাম? তাছাড়া টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট ছোট ফরম্যাট। এই ফরম্যাটে মন ও শরীরে সেভাবে প্রভাব পড়ার কথা নয়। টেস্ট, ওয়ানডে অনেক বেশি পরিশ্রমের। তা হলে টি-টোয়েন্টি দেশের হয়ে খেলার সময় বিশ্রামের প্রয়োজন কী!’

ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের বিশ্রাম নীতি এখন নিয়মিত একটা ব্যাপার হয়ে দাঁড়িয়েছে। এটির পরিবর্তনও দাবি করলেন গাভাস্কার। আরও বলছিলেন, দেখুন, ‘ক্রিকেটারদের বিশ্রাম দেওয়ায় বিশ্বাসী নই আমি। আইপিএলের সময় তো কেউ বিশ্রাম চায় না। তা হলে ভারতের হয়ে খেলার সময় কেন বিশ্রাম চাই? এই বিশ্রাম নেওয়ার ব্যাপারে ভাবা উচিত বোর্ডের। গ্রেড ‘এ’ ক্রিকেটাররা অনেক টাকা পায়। ভারতীয় ক্রিকেটারদের অনেক বেশি পেশাদার হওয়া উচিত। বিশ্রাম নিতে হলে প্রাপ্য অর্থও কম নিতে হবে তাদের। এবার খেলতে না চাইলে বিশ্রাম নাও।’

x