October 7, 2022

মিসরের জন্য কিছুই করেননি সালাহ

মিসরকে ফুটবল বিশ্বে অযুত খ্যাতি এনে দিয়েছেন মোহামেদ সালাহ। মিসর থেকে উঠে আসা ফুটবলারদের মধ্যে তার মতো জগৎজোড়া খ্যাতি আর কেউ পাননি। লিভারপুলের হয়ে ইউরোপীয় ফুটবল মাতিয়ে রাখা সালাহ ২০১৯ থেকে মিসরের নেতৃত্ব দিচ্ছেন। দেশের হয়ে এখন পর্যন্ত ৮৫ ম্যাচে করেছেন ৪৭ গোল। মিসরের হয়ে সর্বকালের সর্বোচ্চ গোলদাতার তালিকায় রয়েছেন দ্বিতীয় স্থানে। তবে এত কিছুর পরও দেশটির সাবেক কোচ হাসান শেহাতা মনে করেন, সালাহ আসলে মিসরের জন্য কিছুই করেননি।

Thank you for reading this p

ost, don't forget to subscribe!

 

 

 

মিসরকে টানা তিনবার আফ্রিকা কাপ অব নেশনস জিতিয়ে সালাহ’র অভিষেকের ঠিক আগে কোচের পদ ছেড়েছিলেন শেহাতা। সম্প্রতি মিসরীয় সংবাদমাধ্যম ইজিপ্ট ইন্ডিপেনডেন্টের সঙ্গে আলাপচারিতায় শেহাতা জাতীয় দলে সালাহর অবদান নিয়ে প্রশ্ন তোলেন, ‘দুঃখিত, তবে জাতীয় দলের হয়ে কিছুই করেনি। তার আরও অনেক ভালো করা উচিৎ ছিল। জাতীয় দলের হয়ে যখন খেলে তখন তার আরও উদ্যমী হওয়া উচিৎ।’

লিভারপুলের জার্সিতে বিশ্বের সেরাদের সেরার সঙ্গে খেলেন সালাহ। তবে জাতীয় দলে তেমনটা হয়ে ওঠে না। তার ক্লাব আর জাতীয় দলের সতীর্থদের মধ্যে পার্থক্য অনেক। মিসরের ইতিহাসের সফলতম কোচ হাসান মনে করেন, সালাহকেই দায়িত্ব নিয়ে ঘোচাতে হবে এই ব্যবধান, ‘এখানকার কর্মকর্তাদের ওর বলা উচিত ছিল। সে হয়তো খেলোয়াড় নির্বাচন করে না, কিন্তু ওর বলা উচিত ছিল ইংল্যান্ডে যাদের সঙ্গে খেলে, এখানকার খেলোয়াড়েরা তেমন নয়। এর ফলে সালাহর জন্য মাঠে জায়গা বের করার উপায় বের করতে হবে কোচদের। আমাদের এমন খেলোয়াড় খুঁজে বের করতে হবে, যারা ওকে ভালোভাবে খেলতে সাহায্য করবে।’

২০১১ সালে অভিষেক হলেও এখনো মিসরের হয়ে কোনো শিরোপা ছুঁয়ে দেখতে পারেননি সালাহ। ২০১৭ এবং ২০২১ সালে আফ্রিকা কাপ অব নেশনসের ফাইনালে উঠলেও তীরে এসে তরী ডুবেছে সালাহ’র মিসরের। তবে ১৯৯০ সালের পর বিশ্বকাপ বাছাইয়ে সালাহর দারুণ নৈপুণ্যের জোরেই ২০১৮ বিশ্বকাপ খেলার সুযোগ পেয়েছিল উত্তর আফ্রিকার দেশটি।

x